মহামারীর এই সময়ে সঠিক ব্যবসাটি নির্বাচন করা একটি চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়িয়েছে। আমরা অনেকেই ভেবে পারছি না যে কোন ব্যবসাটি আমাদের জন্য উপযুক্ত আর কোনটি নয় ! আবার  তার মধ্যে পুঁজিও তো খুব একটা বেশি নেই ! ফলস্বরুপ মনে প্রশ্ন উঠে ব্যবসা করার চিন্তাটি কি বাদ দিয়ে অন্য কিছু করলে ভালো হবে? এই চিন্তা স্বাভাবিক হলেও কিছু ব্যবসার আইডিয়া এখনো আপনাকে আপনার সেই ব্যবসার ইচ্ছাকে জাগিয়ে রাখতে সম্ভব। একটি সহজ ব্যবসার আইডিয়া শেয়ার করা হলো-

ঘরে খাবার তৈরি

আপনি যদি রান্না বান্নায় পারদর্শী হন, তাহলে আজই এই পারদর্শীতাকে কাজে লাগিয়ে একটি ব্যবসা দাঁড় করিয়ে ফেলতে পারেন। গত কয়েক বছরে ঘরের তৈরি খাবারের চাহিদা তো বৃদ্ধি পেয়েছে বটে কিন্ত তার সাথে সাথে ফুডপান্ডা বা সহজের মত ডেলিভারি কোম্পানিগুলোও ঘরের তৈরি খাবারের ডেলিভারি সিস্টেম চালু করেছে।

মাত্র পাঁচ থেকে দশ হাজার টাকার একটি প্ল্যান আপনাকে শহরের সেরা ফুড ক্যাটারার বানিয়ে দিতে পারে। দেশের বড় শহর গুলোতে এই ধরণের সার্ভিস চললেও ছোট শহর গুলোতে এটি সম্পূর্ণ নতুন ব্যবসার একটি উদাহরণ।

তাই আপনি যদি ছোট কোন শহরে বাস করে ব্যবসার অন্য কোন সুযোগ না পেয়ে থাকেন তাহলে এই আইডিয়াটি আপনার জন্য উত্তম হতে পারে।

ফিচার বিজ্ঞাপন

Ho chi minh -Hanoi – Halong Cruise 5D/4N

মূল্য: 49,900 Taka

Australia Visa (for Govt Service Holder)

মূল্য: 20,000 Taka

সুবিধা

খরচ একদম কম।নিজের পারদর্শীতা। সম্পন্ন আইটেম বিক্রি করতে পারবেন। এছাড়া লাভ যে থাকবে সেটা নিশ্চিত।

অসুবিধা

অসুবিধাটি তখনই ঘটে যখন কোন ধরণের প্ল্যান ছাড়া হঠাৎ খাবার বিক্রি শুরু করে দেন। ব্যবসাটি লং টার্ম করতে চাইলে অবশ্যই একটি চার্ট করুন যাতে একটি রুটিন থাকে যেখানে আপনার খাবারের তালিকা থাকবে।

প্রাসঙ্গিক কথাঃ “ঢাকা বৃত্তান্ত”প্রচলিত অর্থে কোন সংবাদ মাধ্যম বা অনলাইন নিউজ সাইট নয়। এখানে প্রকাশিত কোন ফিচারের সাথে সংবাদ মাধ্যমের মিল খুঁজে পেলে সেটি শুধুই কাকতাল মাত্র। এখানে থাকা সকল তথ্য ফিচার কেন্দ্রীক ও ইন্টারনেট থেকে সংগ্রহীত। “ঢাকায় থাকি”কর্তৃপক্ষ বিশ্বাস করে এসব তথ্য একত্রিত করার ফলে তা ঢাকাবাসীকে সাহায্য করছে ও করবে। আসুন সবাই আমাদের এই প্রিয় ঢাকা শহরকে সুন্দর ও বাসযোগ্য করে গড়ে তুলি। আমরা সবাই সচেতন, দায়িত্বশীল ও সুনাগরিক হিসাবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করি।

কুইক সেল অফার

অবিশ্বাস্য দামে ব্রান্ডের ঘড়ির কিনুন

অবিশ্বাস্য দামে ব্রান্ডের ঘড়ির কিনু...



৩০ বার পড়া হয়েছে